শনিবার , ১৬ মার্চ ২০২৪ | ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
  1. ! Без рубрики
  2. 1Win Brasil
  3. 1win Brazil
  4. 1win India
  5. 1WIN Official In Russia
  6. 1win Turkiye
  7. 1winRussia
  8. casino
  9. Mostbet Russia
  10. mostbet tr
  11. Pin Up Peru
  12. казино
  13. অন্যান্য
  14. অপরাধ
  15. আমাদের পরিবার

গাজায় রমজানের রাতে ৮০ জনকে হত্যা, নিহত সাড়ে ৩১ হাজার

প্রতিবেদক
admin
মার্চ ১৬, ২০২৪ ১১:০৭ পূর্বাহ্ণ

ফিলিস্তিনের অবরুদ্ধ গাজায় পবিত্র রমজানের রাতে হামলা চালিয়ে ৮০ জনকে হত্যা করেছে ইসরায়েলি বাহিনী।

ফিলিস্তিনি বার্তা সংস্থা ওয়াফা জানিয়েছে, নুসাইরাত শরণার্থী শিবির এবং গাজা সিটিসহ গাজা উপত্যকার বিভিন্ন অংশে ইসরায়েল হামলা অব্যাহত রেখেছে। গাজায় ইসরায়েলের হামলায় নিহতের সংখ্যা সাড়ে ৩১ হাজারে পৌঁছেছে।

গাজায় বেসামরিক বাড়িঘর ও ভবন লক্ষ্য করে হামলায় অনেকেই আহত হয়েছেন। ইসরায়েলি সেনাবাহিনী আল-জালা স্ট্রিটের একটি বাড়িতে বোমাবর্ষণ করে। অনেক বাসিন্দা ধ্বংসস্তূপে আটকে পড়ে।

আনাদুলু এজেন্সির খবরে বলা হয়েছে, গাজা শহরের আল-শিফা হাসপাতালের কাছে একটি সাততলা ভবন গুড়িয়ে দেয় ইসরায়েল। সেখানে বাস্তুচ্যুত ফিলিস্তিনিরা আশ্রয় নিয়েছিল। এই হামলায় সেখানে কয়েক ডজনের মৃত্যু হয়েছে, আরও অনেকে ধ্বংসস্তূপের নিচে আটকা পড়েছে।

বেসামরিক প্রতিরক্ষা দলগুলো ভবনের ধ্বংসস্তূপ থেকে পাঁচজন ফিলিস্তিনির মরদেহ উদ্ধার করেছে, উদ্ধার তৎপরতা চলছে। গাজা শহরের তুফাহ পাড়ায় একটি বাড়িতে হামলায় অন্তত পাঁচ ফিলিস্তিনি নিহত ও অনেকে আহত হয়েছেন।

গাজা সরকারের মিডিয়া অফিস জানিয়েছে, নাসরের আশেপাশে, সেনাবাহিনী একটি বাড়িতে বোমা বর্ষণ করলে অনেকে নিহত হয়। সেনাবাহিনী নুসাইরাত শরণার্থী শিবিরের একটি বাড়ি লক্ষ্য করে হামলা চালিয়ে কমপক্ষে ৩৬ ফিলিস্তিনিকে হত্যা করেছিল।

গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, ইসরায়েলি হামলায় এখন পর্যন্ত নিহত হয়েছেন ৩১ হাজার ৪৯০ জন। এদের বেশিরভাগই নারী ও শিশু। এছাড়া আহত হয়েছেন ৭৩ হাজার ৪৩৯ জন।

গাজা উপত্যকায় অবিরাম বিমান ও স্থল হামলা চালিয়ে যাচ্ছে দখলদার ইসরায়েল। ইসরায়েলি এই হামলায় হাসপাতাল, স্কুল, শরণার্থী শিবির, মসজিদ, গির্জাসহ হাজার হাজার ভবন ক্ষতিগ্রস্ত বা ধ্বংস হয়ে গেছে। ইসরায়েলি হামলায় পুরো গাজা ভূখণ্ড প্রায় ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে।

কঠোর অবরোধ ও অবিরাম হামলার মধ্যে থাকা গাজাবাসীরা অনাহারে ভুগতে ভুগতে দুর্ভিক্ষের প্রান্তে চলে গেছে। ইতোমধ্যেই অপুষ্টি ও পানিশূন্যতায় শিশুসহ অনেকের মৃত্যু হয়েছে। ক্ষুধায় বেপরোয়া হয়ে ওঠা লোকজন ত্রাণের জন্য হাহাকার করছে। ত্রাণবাহী ট্রাক দেখলেই ঝাঁপিয়ে পড়ছে, ত্রাণের জন্য হুড়োহুড়ি করছে।

সর্বশেষ - রাজনীতি